পরীক্ষা ছাড়াই জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি

National-Universityপরীক্ষার মাধ্যমে মেধা যাচাই ছাড়াই স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে ভর্তির সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত কলেজগুলোতে আসন্ন (২০১৫-১৬) শিক্ষাবর্ষে পরীক্ষা ছাড়াই কেবল এসএসসি ও এইচএসসির ফলাফলের ভিত্তিতে স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। আজ শনিবার গাজীপুরে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ১৭তম সিনেটে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে জানা গেছে।

তবে মেধা ও যোগ্যতা যাচাই ছাড়াই কেবল নিম্নস্তরের অ্যাকাডেমিক সার্টিফিকেটের ভিত্তিতে উচ্চশিক্ষার জন্য মনোনীত করার নজিরও বিশ্বের প্রথম হতে যাচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন দেশের বিশিষ্ট শিক্ষাবিদেরা। তারা বলেন, উচ্চশিক্ষার কফিনে এটি ‘শেষ পেরেক’ হবে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের দায়িত্বশীল সূত্রগুলো জানায়, ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষ থেকে পরীক্ষা ছাড়া স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। কেবল এসএসসি ও এইচএসসির ফলাফলের ভিত্তিতে শিক্ষার্থী ভর্তি নেয়া হবে। সিনেটে এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত হতে যাচ্ছে।

এর আগে গত মার্চ মাসে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. হারুন-অর-রশিদ বিশ্ববিদ্যালয়ের ঢাকা ক্যাম্পাসে এক সংবাদ সম্মেলনে কোনো ভর্তি পরীক্ষা ছাড়াই স্নাতক শ্রেণীতে ভর্তি করার পরিকল্পনার কথা ঘোষণা করেছিলেন। আজকের সিনেট অধিবেশনে এ ব্যাপারে আলোচনা ও সিদ্বান্ত নেয়া হবে। এর প্রধানতম যুক্তি হচ্ছে ভর্তি পরীক্ষায় সময়ক্ষেপণ হয়। শিক্ষার্থীদের ভর্তিতে এক বছরের মতো পিছিয়ে পড়তে হয়। এমনিতেই পরীক্ষার চাপে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নুয়ে পড়েছেন। তাই ভর্তি পরীক্ষা বাতিল করা হচ্ছে।

এ দিকে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন সরকারি কলেজগুলোকে সংলগ্ন ও বড় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ন্যস্ত করার ব্যাপারে আবার তাগিদপত্র দেয়া হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে। বারবার পরীক্ষা পেছানো ও ফলাফল প্রকাশে দীর্ঘসূত্রতার কারণে অনেক শিক্ষার্থীর চাকরির বয়সও শেষ হওয়ার প্রেক্ষাপটে প্রধানমন্ত্রী সরকারি কলেজগুলোকে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ছেড়ে দেয়ার ব্যাপারে নির্দেশনা দিয়েছিলেন। সে আলোকে গত ডিসেম্বরে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) একটি কমিটি করলেও তা অনেকটাই নিষ্ক্রিয় বলে জানা গেছে। ওই কমিটিকে এক মাসের মধ্যে তাদের রিপোর্ট দেয়ার নির্দেশনা থাকলেও গতকাল পর্যন্ত সেটি সম্পন্ন হয়নি বলে জানা গেছে।

সূত্র : নয়া দিগন্ত

About সম্পাদক

মো: বাকীবিল্লাহ। গ্রামের বাড়ি বরগুনা জেলার পাথরঘাটাতে। থাকেন ঢাকার সাভারে। পড়াশোনা করেছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে -- সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে অনার্স, মাস্টার্স । পরে এলএলবি করেছেন একটা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। তাঁর লেখালেখি মূলত: ক্যারিয়ার বিষয়ে। তারই সূত্র ধরে সম্পাদনা ও প্রকাশ করছেন ক্যারিয়ার ইনটেলিজেন্স নামে এই ম্যাগাজিনটি। এছাড়া জিটিএফসি গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) হিসেবে কর্মরত। ভিডিও তৈরি ও সম্পাদনা, ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট, গ্রাফিক ডিজাইন এবং পাবলিক লেকচারের প্রতি আগ্রহ তাঁর।

View all posts by সম্পাদক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *