সামাজিক নেটওয়ার্ক সাইট ‘টুইটার’

1
49

সোসাল নেটওয়ার্ক সাইটগুলো মধ্যে সাড়া জাগানো এক নাম টুইটার। বাংলাদেশে ফেসবুকের ব্যাপকতা লক্ষ করা গেলেও গুরুত্বের বিবেচনায় বিশ্বব্যাপী টুইটারই শীর্ষে। বর্তমানে টুইটারে সদস্য প্রায় দুই কোটি।

টুইটার কী
টুইটার একটি সোশ্যাল নেটওয়ার্কিং সাইট। সারা পৃথিবীর ছড়িয়ে থাকা বন্ধু এবং আগন্তুকদের নিয়ে একটা কমিউনিটি। এখানে প্রতিদিন দৈনন্দিন জীবনের ছোট ছোট ঘটনা আপডেট দেয়া হয়। একে আবার মাইক্রোব্লগিং সাইট বলা হয়।

প্রতিষ্ঠা
যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের সানফ্রানসিসকোর জ্যাক ডোরস ও তার বন্ধুরা মিলে তাদের ব্যক্তিগত কোম্পানির সদস্যদের মধ্যে যোগাযোগ রক্ষার জন্য সর্বপ্রথম এসএমএস পদ্ধতি চালু করে। পরে যোগাযোগ সাইটের প্রয়োজনীয়তা উপলব্ধি করে ২০০৬ সালের ১৫ জুলাই টুইটারের আত্মপ্রকাশ ঘটে।

টুইটার কিভাবে কাজ করে?
‘তুমি কী করছ?’- এই সহজ প্রশ্নটি টুইটার করে। আপনি আপনার দৈনন্দিন জীবনের কখন কী করেন বা করবেন তা এখানে লিখবেন। সহজ করে ১৪০ শব্দের মাঝে। আপনাকে যারা অনুসরণ করবে তারা তাদের পেইজে আপনার আপডেট দেখতে পাবে। একইভাবে আপনি চাইলে কাউকে ফলো করে তার আপডেট আপনার পাতায় দেখতে পারেন।

ইতিহাস
জ্যাক ডোরসে তাদের বাণিজ্যিক গ্রুপ পডকাস্টিং কোম্পানির এক বোর্ড সদস্যদের বৈঠকে একটি চিন্তার কথা শেয়ার করেন। তার চিন্তা কিভাবে সব সময় সবার কাছে থাকা যায়? কিভাবে সবার সামনে নিজেকে তুলে ধরা যায়? তখন তারা ব্যক্তিগত পর্যায়ে যোগাযোগ রক্ষার জন্য খুদে বার্তার দ্বারস্থ হতো। একটি মেসেজের মাধ্যমে সবাইকে কাছে পেত। ডোরসের ধারণার পরিপূর্ণতায় আজকের জনপ্রিয় সাইট টুইটার। আর এর নামটি তাৎপর্যও যথার্থ।

যেভাবে যাত্রা শুরু করবেন
টুইটার সাইটে গিয়ে প্রথমে সাইনআপ করতে হয় এবং সেটি অবশ্যই ফ্রি। নিজের ইয়াহু, জিমেইল বা এমএসএন আইডিতে লগইন করে আপনার টুইটারে নিবন্ধিত বন্ধু খুঁজে নিতে পারেন। আবার নাম বা কিওয়ার্ড লিখে সার্চ করে দেখতে পারেন। বারাক ওবামা থেকে শুরু করে সিএনএন ব্রেকিং নিউজ, লিনাক্স, ফায়ারফক্স সব কিছুই খুঁজে পাবেন। এরপর আপনি যাদের আপডেট জানতে আগ্রহী তাদের ফলো করবেন। পরে চাইলে যেকোনো সময় ফলো করা বন্ধ করে দিতে পারেন। খুবই সহজ। চাইলে টুইটারে আমাকে ফলো করতে যাত্রা শুরু করতে পারেন ।

বিশেষ তথ্য
প্রতিষ্ঠাকাল : ১৫ জুলাই ২০০৬
প্রতিষ্ঠাতা : জ্যাক ডোরসে ও ইভ্যান ইউলিয়ামস
স্লোগান : কী ঘটছে?
ব্যবহৃত ভাষা : ইংরেজি, স্পানিশ, জাপানিজ, জার্মান, ফ্রেঞ্জ ও ইতালিয়ান
ওয়েবসাইট : www.twitter.com

ঘোষণা

আপনিও লিখুন


প্রিয় পাঠক, আপনিও লিখতে পারেন ক্যারিয়ার ইনটেলিজেন্সে। শিক্ষা, ক্যারিয়ার বা পেশা সম্পর্কে যে কোনো লেখা আমাদের কাছে পাঠিয়ে দিন। পাঠাতে পারেন অনুবাদ লেখাও। তবে সেক্ষেত্রে মূল উৎসটি অবশ্যই উল্লেখ করুন লেখার শেষে। লেখা পাঠাতে পারেন ইমেইলে অথবা ফেসবুক ইনবক্সে। ইমেইল : [email protected]
Previous articleরাশিয়ায় উচ্চশিক্ষা
Next articleসপ্তাহের চাকরি
Avatar
গ্রামের বাড়ি বরগুনা জেলার পাথরঘাটাতে। থাকেন ঢাকার সাভারে। পড়াশোনা করেছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে- সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে অনার্স, মাস্টার্স । পরে এলএলবি করেছেন একটা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। তাঁর লেখালেখি মূলত: ক্যারিয়ার বিষয়ে। তারই সূত্র ধরে সম্পাদনা ও প্রকাশ করছেন ক্যারিয়ার ইনটেলিজেন্স নামে এই ম্যাগাজিনটি। এছাড়া জিটিএফসি গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) হিসেবে কর্মরত। ভিডিও তৈরি ও সম্পাদনা, ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট, গ্রাফিক ডিজাইন এবং পাবলিক লেকচারের প্রতি আগ্রহ তাঁর।

1 COMMENT

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here