রাবির ভর্তি পরীক্ষায় এমসিকিউ থাকছে না

বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষায় এমসিকিউ থাকছে না বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয় ভিসি অধ্যাপক ড. এম আব্দুস সোবহান। শুক্রবার সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কর্মসূচি শেষে সাংবাদিকদের একথা জানান তিনি।

অধ্যাপক ড. এম আব্দুস সোবহান বলেন, ‘এমসিকিউতে সত্যিকার মেধা যাচাই হয় না। চারটা উত্তরের মধ্যে একটি টিক দিলে সঠিক হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই এবছর থেকে সৃজনশীল পদ্ধতিতে পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন। সেখানে দুই ঘন্টায় ১০০ মার্কের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এবং খাতা দেখা হবে।’

এদিকে ইউনিট কমিয়ে দুইদিনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়ে ভিসি বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয়ে পূর্বে অনেকদিন ধরে পরীক্ষা হতো তবে এখন ইউনিট কমিয়ে ৪টি ইউনিটে ২ দিনে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রাথমিকভাবে আগামী ২২ ও ২৯ অক্টোবর তারিখে পরীক্ষার দিন ঠিক করার প্রস্তাব রাখা হয়েছে। একাডেমিক কাউন্সিলের সভায় বিষয়টি পাশ হলে সিদ্ধান্তের ব্যাপারে জানিয়ে দেয়া হবে।

অন্যদিকে এবছর ভর্তি পরীক্ষায় দুইটি পর্যায়ে আবেদন করতে হবে শিক্ষার্থীদের। প্রথম পর্যায়ে রেজাল্টের মান দেখে শিক্ষার্থীদেরকে বাছাই করা হবে। পরে বাছাইয়ে উত্তীর্ণদেরকে পরীক্ষার প্রবেশপত্র উত্তোলনের ব্যাপারে জানিয়ে হবে। এসময় পরীক্ষার নির্দিষ্ট ফি কাটা হবে বলে জানান তিনি। এছাড়া নির্দিষ্ট সংখ্যক শিক্ষার্থী পরীক্ষায় বসতে পারবেন।

তবে এবছরও দ্বিতীয় বার পরীক্ষার সুযোগ থাকছে কিনা সে বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে কোন সাল পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা পরীক্ষা দিতে পারবেন সে বিষয়ে পরে জানানো হবে বলে জানান তিনি।

About সম্পাদক

মো: বাকীবিল্লাহ। গ্রামের বাড়ি বরগুনা জেলার পাথরঘাটাতে। থাকেন ঢাকার মতিঝিলে। পড়াশোনা করেছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে -- সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে অনার্স, মাস্টার্স । পরে এলএলবি করেছেন একটা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। তাঁর লেখালেখি মূলত: ক্যারিয়ার বিষয়ে। তারই সূত্র ধরে সম্পাদনা করছেন ক্যারিয়ার ইনটেলিজেন্স নামে এই ম্যাগাজিনটি। এছাড়া জিটিএফসি গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) হিসেবে কর্মরত।

View all posts by সম্পাদক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *