সিদ্ধান্ত নিতে যা মনে রাখা জরুরি

জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে মানুষকে সিদ্ধান্ত নিতে হয়। কখনো সাধারণ বিষয়ে আবার কখনো কখনো জটিল কোনো বিষয়ে কঠিন সিদ্ধান্তও মানুষকে নিতে হয়। এ কথা বলার অপেক্ষা রাখে না, সঠিক সিদ্ধান্ত নেয়ার ওপর অনেকটাই নির্ভর করে কাজের সাফল্য। তবে সিদ্ধান্ত গ্রহণের বিষয়টি নির্ভর করে ব্যক্তিবিশেষের ব্যক্তিত্বের ওপর। প্রত্যেকে তার নিজস্ব চিন্তাভাবনা থেকে প্রতিটি বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকে। তবে যেকোনো বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে কয়েকটি বিষয় মনে রাখা জরুরি।
• সিদ্ধান্ত এমনভাবে নিতে হবে যেন সেটা প্রথমত নিজের পছন্দমতো হয়।
• যতটুকু সম্ভব সিদ্ধান্তটা সহজ করার চেষ্টা করবেন।
• চাহিদা ও বিষয়বস্তুর ওপর নির্ভর করে যে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে তাতে দৃঢ় থাকার মানসিকতাও থাকতে হবে।
• বাস্তবের কথা মনে করে রাখুন প্রশ্রয় দেয়া উচিত হবে না। যেকোনো বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়ার আগে সবার মতামত জেনে তার ওপর ভিত্তি করে সঠিক সিদ্ধান্ত নেয়ার চেষ্টা করবেন।
• সিদ্ধান্ত একক এবং দলীয় উভয়ভাবেই হতে পারে। গৃহ ব্যবস্থাপনায় পারিবারিক সিদ্ধান্ত গ্রহণে সবার মতামত নেয়া যেতে পারে। পারিবারিক সিদ্ধান্ত দলীয় সিদ্ধান্তের একটি বিশেষ রূপ। অনেক সময় কাজের প্রকৃতির ওপর নির্ভর করে কী ধরনের সিদ্ধান্ত নেয়া হবে, একক না দলীয়।
• দলীয় সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রক্রিয়া ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত গ্রহণের চেয়ে বেশি জটিল এবং সময়সাপেক্ষ। বড় ও গুরুত্বপূর্ণ কোনো কাজের সিদ্ধান্ত দলীয়ভাবে গ্রহণ করাই বেশি ভালো। এ ক্ষেত্রে কাজটি সুন্দর হয় এবং ভুল হওয়ার সম্ভাবনা কম থাকে। দলীয় সিদ্ধান্তের মাধ্যমে কোনো কাজ করতে হলে ব্যক্তিগত সম্পর্ক ভালো থাকতে হয় তাহলে সহযোগিতা ও বিশ্বস্ততা বাড়ে এবং গৃহীত সিদ্ধান্তের প্রতি প্রত্যেকের বিশ্বাস জন্মে। দলীয় সিদ্ধান্তে সবাই মতামত প্রকাশ করতে পারে। খোলামেলা আলোচনার সুযোগ থাকে। দলীয় সিদ্ধান্তে সদস্য বেশি হওয়ায় যুক্তিতর্কে একপর্যায়ে সমাধানের পথ সহজেই বেরিয়ে আসে।

About সম্পাদক

মো: বাকীবিল্লাহ। গ্রামের বাড়ি বরগুনা জেলার পাথরঘাটাতে। থাকেন ঢাকার মতিঝিলে। পড়াশোনা করেছেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে -- সরকার ও রাজনীতি বিভাগ থেকে অনার্স, মাস্টার্স । পরে এলএলবি করেছেন একটা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। তাঁর লেখালেখি মূলত: ক্যারিয়ার বিষয়ে। তারই সূত্র ধরে সম্পাদনা করছেন ক্যারিয়ার ইনটেলিজেন্স নামে এই ম্যাগাজিনটি। এছাড়া জিটিএফসি গ্রুপের চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) হিসেবে কর্মরত।

View all posts by সম্পাদক →

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *